ফহিন্নির ঘরের ফহিন্নি সব

ফহিন্নির ঘরের ফহিন্নি সব। রাস্তার পাশে শীতে কুঁকড়ে পড়ে থাকা বাপের বয়সী একটা ভিক্ষুকের ভিক্ষার থালায় ২ টাকা দিতে যে পারে না, সে আবার অন্য কেউ সেটা দিলে বলে 'হ্যারে (!) যে টাকাটা দিলেন, এইডা দিয়া দিয়াই তো তাগো অভ্যাসডা খারাপ কইরা দিতেছেন', সুন্দর হাসি-মাখা্ মুখে বললেন ভদ্রলোক (!)



আমি বললাম, 'বয়সে আপনার নানার সমান, একটু সম্মান দিয়ে কথা বইলেন। আর কোন অবস্থায় পড়ে মানুষ অন্যের কাছে ভিক্ষার হাত পাতে তা জানা না থাকলে নিজে দিয়েন না, কিন্তু অন্যরে নিরুৎসাহিতও কইরেন না'
অতঃপর বিরক্তির সহিত ভদ্রলোকের (!) দ্রুত পদে স্থান ত্যাগ।

দ্রষ্টব্য: ভিক্ষুককে ভিক্ষা দিয়ে উৎসাহিত করবার পক্ষে আমি নই। কিন্তু বয়সের ভাড়ে ন্যুহ হয়ে পড়া জীবন-সায়াহ্নে এসে মৃত্যু কামনা করতে থাকা একটা মানুষ আর ধান্ধাবাজদের মধ্যে দৃশ্যমান পার্থক্য থাকে, এবং তা যদি আপনার দৃষ্টিগোচর না হয় তবে এড়িয়ে চলুন কিন্তু মন্তব্য করা থেকে বিরত থাকুন। পুঁথিগত বিদ্যাই যখন আপনার সম্বল তখন জেনে রাখুন একেকটা মানুষের জীবন নিজেই একেকটা পুঁথি হয়ে যাবে যদি লেখা হয়। তাই পুঁথিগত বিদ্যা না আওড়ায়ে মানুষ কাছাকাছি গিয়ে তাদের জীবন পড়ুন, পুঁথি তখন আপনা থেকেই মূল্যহীন হয়ে যাবে

Recommended

Comments

Contact Us

Author